বিরাট কোহলির পাশে রাহুল গান্ধী, এর আগে মুখ খুলেছেন শামির হয়েও

বিরাট কোহলির পাশে রাহুল গান্ধী

জাস্ট দুনিয়া ডেস্ক: বিরাট কোহলির পাশে রাহুল গান্ধী এবার। এর আগে তিনি মহম্মদ শামির হয়েও টুইট করেছিলেন। টি২০ বিশ্বকাপ ২০২১-এ এখনও জয়ের মুখ দেখেনি ভারতীয় ক্রিকেট দল। প্রথম ম্যাচে পাকিস্তানের কাছে হারের পর দ্বিতীয় ম্যাচেও হারতে হয়েছে নিউজিল্যান্ডের কাছে। সব বিভাগে চূড়ান্ত ফ্লপ ভারতীয় ক্রিকেট দল। পাকিস্তানের কাছে হারের পর মহম্মদ শামিকে সোশ্যাল মিডিয়ায় হেনস্তার মুখে পড়তে হয়েছিল। নিউজিল্যান্ডের কাছে হারের পর অবশ্য সব ক্ষোভের মুখে অধিনায়ক বিরাট কোহলি। শুধু বিরাটই নন তার পরিবারকেও ছাড়ছে না সেই সব আক্রমণকারীরা। এমনকি তাঁর ৯ বছরের কন্যা সন্তানকে ‘রেপ থ্রেট’ দেওয়া হচ্ছে। যা দেখে স্তম্ভিত গোটা বিশ্ব।

এই পরিস্থিতিতে আবার টুইট করে নিজের অবস্থান ব্যাক্ত করেছেন রাহুল গান্ধী। বিরাটের পাশে থাকার বার্তা দিয়েছেন তিনি। তিনি টুইটে লেখেন, ‘‘ডিয়ার বিরাট, এই মানুষগুলো ঘৃণায় ভরপুর কারণ ওদের কেউ কখনও ভালবাসা দেয়নি। ওদের ক্ষমা করে দাও। দলকে আগলে রাখো।’’ এর আগে তিনি মহম্মদ শামিকেও একই কথা টুইটে লিখেছিলেন, ‘‘মহম্মদ শামি আমরা সবাই তোমার  সঙ্গে রয়েছি। এই মানুষগুলো ঘৃণায় ভরপুর কারণ ওদের কেউ কখনও ভালবাসা দেয়নি।’’

এদিনই দিল্লি কমিশন ফর ওমেন দিল্লি পুলিশকে একটি নোটিস দিয়ে এই সব হুমকি দেওয়া মানুষদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়ার আর্জি জানিয়েছে। ডিসিডব্লু চেয়ারপার্সন বলেন, ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি ও বলিউড অভিনেত্রী অনুষ্কা শর্মার কন্যাকে নিয়ে যে ভাষা ব্যবহার করা হয়েছে তা লজ্জাজনক। এই দলই আমাদের হাজারবার গর্বিত করেছে। হারের পর এই ব্যবহার কেন? বলে প্রশ্ন তুলেছেন তিনি। তিনি এই হুমকি দেওয়া ব্যক্তিদের তথ্য চেয়ে পাঠিয়েছেন প্রমান সহিত যাতে তাদের গ্রেফতার করা যায়।

এই বার্তায় বলা হয়েছে, যদি দিল্লি পুলিশ এখনও কাউকে গ্রেফতার না করে থাকে তাহলে তাদের গ্রেফতার করার জন্য কী কী পদক্ষেপ নেওটা হয়েছে তার বিস্তারিত জানানো হোক। ৮ নভেম্বরের মধ্যে এই তথ্য দেওয়ার কথা বলা হয়েছে। গত সপ্তাহেই মহম্মদ শামি আক্রমণের মুখে পড়ার পর বিরাট কোহলি এক বার্তায় লিখেছিলেন, ‘‘এক জন মানুষ হিসেবে একজন মানুষকে ধর্ম নিয়ে আক্রমণ করাটা সব থেকে দুঃখজনক।  আতঙ্কেরও। মানুষ তাদের হতাশা এভাবে প্রকাশ করে কারণ তাদের ধারনা নেই আমরা কী করি।  আমরা মাঠে নেমে খেলি, আমরা সোশ্যাল মিডিয়ায় থাকা কিছু মেরুদণ্ডহীন মানুষ নই। এটা কিছু মানুষের জন্য বিনোদন যেটা দুঃখজনক।’’

প্রতিদিন নজর রাখুন জাস্ট দুনিয়ার খবরে

(জাস্ট দুনিয়ার ফেসবুক পেজ লাইক করতে ক্লিক করুন)