ISL 8 OFC vs ATKMB ম্যাচ ড্র করে তিনে বাগান

ISL 8 OFC vs ATKMB

জাস্ট দুনিয়া ডেস্ক: প্রথম লেগের মতো দ্বিতীয় লেগেও ওডিশা এফসি-কে হারাতে পারল না এটিকে মোহনবাগান (ISL 8 OFC vs ATKMB)। বৃহস্পতিবার তিলক ময়দান স্টেডিয়ামে চলতি লিগের শততম ম্যাচটি ১-১-এ শেষ হলেও হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে যে কোনও দল জিততে পারত। সাত নম্বরে থাকা দলের বিরুদ্ধে সেরা চারে থাকা এটিকে মোহনবাগানের কাছ থেকে যে দাপুটে পারফরম্যান্স আশা করা গিয়েছিল, তা সে ভাবে পাওয়া যায়নি। এই ড্রয়ের ফলে সেরা চারে টিকে থাকলেও এটিকে মোহনবাগানের শীর্ষে ওঠার স্বপ্ন জোর ধাক্কা খেল। ১৭ ম্যাচে ৩১ পয়েন্ট পেয়ে তারা তিন নম্বরেই রয়ে গেল। ১৮ ম্যাচে ৩৫ পেয়ে শীর্ষে রয়েছে হায়দরাবাদ।

লিস্টন কোলাসো, হুগো বুমৌসদের খেলায় ক্লান্তির ছাপ ছিল স্পষ্ট। ডেভিড উইলিয়ামস এ দিন স্কোয়াডেই ছিলেন না। মনবীর সিং গোলের সুযোগ হাতছাড়া করার ধারাবাহিকতা বজায় রাখেন। চোট সারিয়ে আসা রয় কৃষ্ণা দ্বিতীয়ার্ধে মাঠে নামলেও মাথা গরম করে পরপর দু’টি হলুদ কার্ড দেখে মাঠ ছেড়ে বেরিয়ে যেতে বাধ্য হন। ফলে পরের ম্যাচে খেলতে পারবেন না তিনি। তাও সবুজ-মেরুনের প্রাক্তন হাভি হার্নান্ডেজ পেনাল্টি পেয়েও গোল পাননি। তিনি সফল হলে ওডিশা হয়তো ম্যাচটা জিততেও পারত।

বৃহস্পতিবার দুই দলই ৪-২-৩-১-এ দল সাজিয়ে খেলা শুরু করে। তবে এটিকে মোহনবাগান একটু বেশিই আক্রমণাত্মক ছিল শুরু থেকে। প্রথম ২৫ মিনিটের মধ্যে ম্যাচে একের পর এক নাটকীয় মুহূর্ত তৈরি হয়। প্রথম পাঁচ মিনিটেই দু-বার গোলের সুযোগ পেয়েও ব্যর্থ হন হুগো বুমৌস। দুই দল দু-দু’টি গোল করে যেমন, তেমনই পেনাল্টিও মিস করেন ওডিশা এফসি-র অন্যতম সেরা তারকা হাভিয়ে হার্নান্ডেজ, যিনি গত মরশুম পর্যন্ত ছিলেন এটিকে মোহনবাগানে।

পাঁচ মিনিটের মাথাতেই দলকে এগিয়ে দেন ওডিশার তরুণ ফরোয়ার্ড রেদিম লাঙ। ডান দিক দিয়ে উঠে একেবারে মাপা লো ক্রসে তাঁকে প্রায় গোলটি সাজিয়ে দেন জেরি। তবে রেদিমের কাছে বল পৌঁছনোর আগে শুভাশিস বোস ও সন্দেশ ঝিঙ্গন তা ক্লিয়ার করার সুযোগ পেয়েছিলেন। রেদিমের পিছনেই ছিলেন প্রীতম কোটালও। কিন্তু তাঁরা সবাই ব্যর্থ হন।  তবে তিন মিনিটের বেশি এই ব্যবধান বজায় রাখতে পারেনি ওডিশা। আট মিনিটের মাথায় গোল শোধ করে দেয় এটিকে মোহনবাগান। বক্সের মধ্যে সাহিল পানওয়ার হুগো বুমৌসকে অবৈধ ভাবে বাধা দেওয়ায় পেনাল্টি দেন রেফারি। পেনাল্টি থেকে গোল করে সমতা আনেন জনি কাউকো।

তবে ২২ মিনিটের মাথায় যে পেনাল্টি ওডিশা এফসি-কে দেন রেফারি আদিত্য পুরকায়স্থ, তাতে যথেষ্ট অসন্তোষ প্রকাশ করতে দেখা যায় সবুজ-মেরুন ফুটবলারদের। বক্সের মধ্যে আরিদাই সুয়ারেজের পা থেকে বল কাড়তে যান তিনি। তাঁর পা বলে লাগলেও রেফারি পেনাল্টি দেন। যদিও হাভির স্পট কিক বাঁদিকে ডাইভ দিয়ে বাঁচিয়ে নেন অমরিন্দর।

স্টপেজ টাইমে আরও বড় ধাক্কা খায় এটিকে মোহনবাগান। ম্যাচে দ্বিতীয়বার হলুদ কার্ড তথা লাল কার্ড দেখায় মাঠ ছেড়ে বেরিয়ে যান রয় কৃষ্ণা। অর্থাৎ বেঙ্গালুরু এফসি-র বিরুদ্ধে পরবর্তী ম্যাচে তিনি খেলতে পারবেন না। এর পরে আর গোল শোধ করার কোনও সুযোগ পায়নি গতবারের রানার্স-আপরা।

এটিকে মোহনবাগান দল: অমরিন্দর সিং (গোল), তিরি, সন্দেশ ঝিঙ্গন (আশুতোষ মেহতা), শুভাশিস বোসপ্রীতম কোটাল (অধি) (মাইকেল সুসাইরাজ), কার্ল ম্যাকহিউ (রয় কৃষ্ণা), জনি কাউকো, লেনি রড্রিগেজ (দীপক টাঙরি), হুগো বুমৌস, মনবীর সিং, লিস্টন কোলাসো (কিয়ান নাসিরি)।

(তথ্য ও লেখা আইএসএল ওয়েবসাইট)

প্রতিদিন নজর রাখুন জাস্ট দুনিয়ার খবরে

(জাস্ট দুনিয়ার ফেসবুক পেজ লাইক করতে ক্লিক করুন)