রবি শাস্ত্রী আবার দায়িত্বে, হেড কোচ হিসেবে নাম ঘোষনা করলেন কপিল

জাস্ট দুনিয়া ডেস্ক: রবি শাস্ত্রী থাকছেন। তিনি যে ভারতীয় ক্রিকেট দলের কোচ থেকে যাবেন তা নিয়ে নিশ্চিত ছিলেন প্রায় সকলেই। তাও সামান্য সংশয় তো ছিলই। কার‌ন ক্রিকেট উপদেষ্টা কমিটি এ বার পুরো বদলে গিয়েছিল। কপিল দেবের নেতৃত্বে এই কমিটিতে এ বার ছিলেন অংশুমান গায়কোয়াড় এবং শান্থা রঙ্গস্বামী। শুক্রবার মুম্বইয়ে আবেদনকারিদের সাক্ষাৎকারের পরই সাংবাদিক সম্মেলনে ভারতীয় সিনিয়র ক্রিকেট দলের হেড কোচ হিসেবে রবি শাস্ত্রীকেই রেখে দেওয়ার কথা ঘোষণা করেন কপিল দেব।

কোচ ও সাপোর্ট স্টাফদের পদের জন্য অনেকেই আবেদন জানিয়েছিলেন। কিন্তু সেখান থেকে বেঁছে নেওয়া হয়েছিল বর্তমা‌ন কোচ রবি ‌শাস্ত্রী, রবিন সিংহ, লালচাঁদ রাজপুত, মাইক হেসন, টম মুডি ও ফিল সিমন্সকে। যদিও শেষে জল্পনাকে সত্যিই করেই রবি শাস্ত্রীর নাম ঘোষণা করে দিলেন কপিল দেব।

এই সংক্রান্ত আরও খবর পড়তে ক্লিক করুন…

ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ খেলতে উড়ে যাওয়ার আগে বিরাট কোহলি আরও একবার তাঁর পছন্দ হিসেবে রবি শাস্ত্রীর নাম জানিয়ে গিয়েছিলেন। বিশ্বকাপের পরই চুক্তি শেষ হয়ে গিয়েছিল রবি শাস্ত্রীসব সব কোচিং স্টাফদের। কিন্তু ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজের কথা মাথায় রেখে বিশ্বকাপের মাঝেই সকলের চুক্তি ৪৫ দিন বাড়িয়ে দেওয়া হয়।

 তার মাঝেই নতুন কোচ ও সাপোর্ট স্টাফদের জন্য আবেদন চেয়ে বিজ্ঞাপন দেয় বিসিসিআই। অনেকেই আগ্রহ দেখিয়েছিলেন। কপিল দেব জানিয়ে দেন তাঁরা কোনওভাবেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষেত্রে বিরাট কোহলির সঙ্গে যোগাযোগ করেননি। তবে তাঁর বক্তব্য ছিল, যদি কথা বলতে হতো তা হলে পুরো দলের সঙ্গেই এই নিয়ে কথা বলতে হতো। বিরাট কোহলিও আগে জানিয়েছিলেন, তাঁর সঙ্গে এই নিয়ে কেউ যোগাযোগ করেনি।

এ যাত্রায় রবি শাস্ত্রীর সঙ্গে সেপ্টেম্বর ২০১৯ থেকে চুক্তি করা হবে ২০২১ টি২০ বিশ্বকাপ পর্যন্ত। বিসিসিআই-এর তথ্য অনুযায়ী রবি শাস্ত্রীর পরই কপিল দেবদের তালিকায় ছিলেন মাইক হাসন। তিনে টম মুডি। কপিল দেব বলেন, কঠিন লড়াই ছিল। সেখান থেকেই চ্যাম্পিয়ন তাঁর এক সময়ের সতীর্থ শাস্ত্রী।

(জাস্ট দুনিয়ার ফেসবুক পেজ লাইক করতে ক্লিক করুন)