সুশান্ত সিং রাজপুত মৃত্যু তদন্ত সিবিআই-এর হাতে তুলে দিল বিহার পুলিশ

ধাক্কা খেল নার্কোটিক্সের তদন্ত

জাস্ট দুনিয়া ডেস্ক: সুশান্ত সিং রাজপুত মৃত্যু তদন্ত বিহার পুলিশের তরফে দেওয়া হল সিবিআইকে। যেদিন থেকে বিহার পুলিশ মুম্বই পৌঁছেছে সুশান্ত সিং রাজপুতের বাবার এফআইআর-এর তদন্ত করতে সেদিন থেকেই গায়েব রিয়া চক্রবর্তী। সুশান্ত রাজপুতের বান্ধবীকে ঘিরেই তৈরি হয়েছে যাবতীয় জল্পনা। প্রথম দিন থেকেই সন্দেহের কেন্দ্রে ছিলেন তিনি। সুশান্তের পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে মুম্বই গিয়ে তাঁর বাড়িতে গেলেও তাঁকে খুঁজে পায়নি বিহার পুলিশের তিন সদস্যের দল।

জানা গিয়েছিল, মুম্বই পুলিশ বিহার পুলিশকে তদন্তে কোনও রকম সাহায্য করেনি। সামান্য একটা গাড়িও তাদের দেওয়া হয়নি। অটোরিক্সা করেই তাঁরা কাজ করছিলেন। সেই পরিস্থিতিতে সুশান্ত সিং রাজপুতের প্রাক্তন প্রেমিকা অঙ্কিতা লোখাণ্ডে তাঁর গাড়িটি বিহার পুলিশকে ব্যবহার করতে দেন।

তবে গোটা দেশের আর্জি শুনে শেষ পর্যন্ত বিহার পুলিশের তরফে সুশান্ত সিং রাজপুত মৃত্যু মামলা সিবিআই-এ গেল। মঙ্গলবারই বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতিশ কুমার সিবিআই তদন্তের দাবি করেছিলেন। সুশান্তের বাবার অভিযোগ ছিল, গত ফেব্রুয়ারিতে যখন তিনি মুম্বই পুলিশের কাছে তাঁর ছেলের জীবন সংশয়ের কথা জানিয়েছিলেন তখন তারা কোনও পদক্ষেপ নেয়নি।

মহারাষ্ট্র সরকার এবং পুলিশ দু’পক্ষই সিবিআই তদন্তের বিরুদ্ধে ছিল। তাদের দাবি ছিল এই মামলায় বিহার পুলিশের কোনও এক্তিয়ার নেই। কারণ সুশান্তের মৃত্যু হয়েছিল মুম্বইয়ে। এবং বিহার পুলিশের কাছে রিয়ার বিরুদ্ধে সুশান্তের পরিবার এফআইআর করার পর সমান্তরাল তদন্ত শুরু করে বিহার পুলিশ। সেই তদন্ত করতে আসা তিন সদস্যের দলকে সাহায্য না করলেও বাধা দেয়নি মুম্বই পুলিশ কিন্তু রবিবার বিহার পুলিশের অফিসার বিনয় তিওয়ারি মুম্বই পৌঁছলে তাঁকে কোয়রান্টিন করা হয়। তাঁকে ভিডিও চ্যাটের মাধ্যমে কাজ করতে বলা হয়। যার বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টও মুম্বই পুলিশের সমালোচনা করেছে।

এর মধ্যে সুশান্তের অ্যাকাউন্ট থেকে টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে রিয়া চক্রবর্তীকে শুক্রবারের মধ্যে এনফোর্সমেন্ট ডাইরেক্টোরেটে দেখা করতে নির্দেশ দেওয়া হল। বলিউড অভিনেতার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে ১৫ কোটি টাকা অজানা কোনও ব্যাক্তির অ্যাকাউন্টে ট্রান্সফার হওয়ার প্রমান রয়েছে। সুশান্তের পরিবার মনে করছেন সেটা রিয়া চক্রবর্তীর সঙ্গে যুক্ত। রিয়ার চার্টার্ড অ্যাকাউন্টেটকে বৃহস্পতিবার ডেকে পাঠানো হয়েছে।

বুধবার বিহার পুলিশ মামলা সেন্ট্রাল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের হাতে তুলে দিয়েছে। যা নিয়ে এতদিন দেশ জুড়ে দাবি উঠেছে। সাধারণ মানুষ থেকে রাজনৈতিক নেতা সকলেই দাবি জানিয়েছিলেন সিবিআই তদন্তের। এই মুহূর্তে সুশান্ত সিং রাজপুত মৃত্যু কাণ্ডের তদন্ত করছে মুম্বই পুলিশ, ইডি ও সিবিআই।

(বিনোদন জগতের আরও খবরের জন্য ক্লিক করুন এই লিঙ্ক)

(জাস্ট দুনিয়ার ফেসবুক পেজ লাইক করতে ক্লিক করুন)