ধাক্কা খেল নার্কোটিক্সের তদন্ত, দিশার মৃত্যুতে নতুন তথ্য

ধাক্কা খেল নার্কোটিক্সের তদন্ত

জাস্ট দুনিয়া ডেস্ক: ধাক্কা খেল নার্কোটিক্সের তদন্ত কারণ সেই দলে ঢুকে পড়েছে কোভিড-১৯। জানা গিয়েছে, নার্কোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর যে দলটি এতদিন ধরে সুশান্ত সিং রাজপুত মৃত্যু তদন্তে মাদক যোগের তদন্ত করছিল তাঁদেরই একজনের শরীরে কোভিড-১৯ পজিটিভ পাওয়া গিয়েছে। যে কারণে আপাতত জিজ্ঞাসাবাদ ও তদন্তের কাজ বন্ধ রাখা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সুশান্তের প্রাক্তন ম্যানেজার শ্রুতি মোদীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে পাঠানো হলেও শেষ পর্যন্ত তা বাতিল করা হয়। সকাল ১০টায় যথাস্থা‌নে পৌঁছে গিয়েছিলেন শ্রুতি মোদী। কিন্তু তার আগেই রিপোর্ট আসে এক অফিসার করোনায় আক্রান্ত। এবার পুরো দলেরই করোনা পরীক্ষা হবে। ফিরে যেতে হয় শ্রুতি মোদীকে।

একই দিনে জিজ্ঞাসাবাদ করার কথা ছিল সুশান্তের চ্যালেন্ট ম্যানেজার জয়া সাহাকেও। তিনিও পৌঁছে ফিরে যান একই কারণে। সুশান্ত সিং রাজপুত মৃত্যু তদন্তে সিবিআই-এর পাশাপাশি জুড়ে গিয়েছে ইডি ও এনসিবি। কিন্তু সবার শেষে যোগ দিয়ে সব থেকে বেশি সাফল্য পেয়েছে এনসিবি।

এর মধ্যেই সুশান্তের প্রাক্তন ম্যানেজার দিশা সালিয়ানের মৃত্যু ঘিরে উঠে এল নতুন তথ্য। বিজেপি সাংসদ নিতেশ রানার দাবি, সেই রাতে দিশা ১০০ নম্বরে ডায়াল করেছিলেন কিন্তু কেউ সেই ফোন ধরেনি। প্রশ্ন উঠছে কেন তিনি ১০০ নম্বরে ফোন করেছিলেনয় কোনো বিপদের আশঙ্কা করেই কি এই ফোন করেছিলেন তিনি? ৮ জুন রাতে এক বহুতল থেকে পড়ে গিয়ে মৃত্যু হয় দিশার। দুর্ঘটনা বলে মামলা রাতারাতি শেষ করে দেওয়া হয়। ১৪ জুন মৃত্যু হয় সুশান্তের। দিশার মৃত্যুতে ভেঙে পড়েছিলেন সুশান্ত। তাহলে কি কোনও যোগ আছে এই দুই মৃত্যুতে? এখন এটাই সব থেকে বড় প্রশ্ন। তৈরি হয়েছে আরও অনেক প্রশ্ন। যার ফলে দিশা সালিয়ানের মৃত্যুর তদন্ত নতুন করে শুরু হতে পারে বলেই মনে করা হচ্ছে।

এতদিন যত গ্রেফতার হয়েছে সবই এনসিবি-র অধিনে মাদক যোগের জন্য। এনসিবি-ই গ্রেফতার করেছে সুশান্তের প্রেমিকা রিয়া চক্রবর্তী ও তাঁর ভাই সৌভিকসহ একাধিক লোককে। সেই মাদক প্রসঙ্গেই রিয়ার সঙ্গে জয়া সাহার চ্যাটের তথ্য পায় এনসিবি। চ্যাট রাস্তা ধরেই মাদক যোগের তদন্তে সাফল্য এসেছে নার্কোটিক্সের।

রিয়ার জামিনও না মঞ্জুর হয়েছে পর পর দু’বার। শোনা যাচ্ছে দ্রুত রিয়া ও সৌভিক উচ্চ আদালতে জামিনের আবেদন জানাবেন। এদিকে সুশান্তের লোনাভালার ফার্ম হাউসের দায়িত্বে থা্কা রইস এক টিভি চ্যানলকে জানিয়েছেন, তিনি সৌভিক ও স্যামুয়েলকে মাদক নিতে দেখেছেন।

সুশান্ত মৃত্যু কাণ্ডে মাদকযোগ ক্রমশ প্রকোট হয়ে উঠছে।  যার সঙ্গে জরিয়ে গিয়েছে গোটা বলিউড। বেরিয়ে এসেছে বড় বড় নাম। সুশান্ত, রিয়ার সঙ্গে মাদক সেবনে নাম উঠে এসেছে ধোনি সিনেমাকে সুশান্তের স্ত্রীর ভূমিকায় অভিনয় করা কিয়ারা আদবানীর নামও। ডাকা হতে পারে তাঁকেও।

এর মধ্যেই সুশান্তের প্রাক্তন ম্যানেজার দিশা সালিয়ানের মৃত্যু ঘিরে উঠে এল নতুন তথ্য। বিজেপি সাংসদ নিতেশ রানার দাবি, সেই রাতে দিশা ১০০ নম্বরে ডায়াল করেছিলেন কিন্তু কেউ সেই ফোন ধরেনি। প্রশ্ন উঠছে কেন তিনি ১০০ নম্বরে ফোন করেছিলেনয় কোনো বিপদের আশঙ্কা করেই কি এই ফোন করেছিলেন তিনি? ৮ জুন রাতে এক বহুতল থেকে পড়ে গিয়ে মৃত্যু হয় দিশার। দুর্ঘটনা বলে মামলা রাতারাতি শেষ করে দেওয়া হয়। ১৪ জুন মৃত্যু হয় সুশান্তের। দিশার মৃত্যুতে ভেঙে পড়েছিলেন সুশান্ত। তাহলে কি কোনও যোগ আছে এই দুই মৃত্যুতে? এখন এটাই সব থেকে বড় প্রশ্ন। তৈরি হয়েছে আরও অনেক প্রশ্ন। যার ফলে দিশা সালিয়ানের মৃত্যুর তদন্ত নতুন করে শুরু হতে পারে বলেই মনে করা হচ্ছে।

(বিনোদন জগতের আরও খবরের জন্য ক্লিক করুন এই লিঙ্ক)

(জাস্ট দুনিয়ার ফেসবুক পেজ লাইক করতে ক্লিক করুন)